আজ ৪ ঠা জুন, ২০২৩ ইং কুষ্টিয়া জেলা আইনজীবী সমিতির সেমিনার রুমে জেলা আইনজীবী সমিতির সহসভাপতি এবং মোহরার যাচাই বাছাই ও টাউট, বাটপার, দালাল নির্মূল সাব কমিটির আহবায়ক অ্যাডভোকেট মনোয়ার হোসেন মুকুলের সভাপতিত্বে সভা অনুষ্ঠিত হয়।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন কুষ্টিয়া জেলা আইনজীবী সমিতির কার্যনির্বাহী কমিটির মোহরার যাচাই বাছাই ও টাউট, বাটপার, দালাল নির্মূল সাব কমিটির সদস্য অ্যাডভোকেট মো: আজমল হক, অ্যাডভোকেট মিছ ছানোয়ারা খাতুন, অ্যাডভোকেট মোঃ আব্দুর রহিম, অ্যাডভোকেট মো: মিলন উর রশিদ, অ্যাডভোকেট মো: ওমর আলী, অ্যাডভোকেট মো: মাহবুব উর রশিদ খান, অ্যাডভোকেট মো: ইমরান হোসেন দোলন, অ্যাডভোকেট মো: মাহমুদ হাসান রাছেল লিটন ও অ্যাডভোকেট মোঃ মুহাইমিনুর রহমান পলল।

এ সময় সাব কমিটির সদস্যবৃন্দের প্রস্তাবে নতুন কিছু প্রস্তাবনা তুলে ধরা হয় যা রেজ্যুলিউশন আকারা জেলা আইনজীবী সমিতি কুষ্টিয়ার কার্যনির্বাহী পরিষদের সাধারণ সম্পাদক বরাবর হস্তান্তর করা হয়ে বাস্তবায়নের জন্য।

প্রস্তাবসমূহ:

১। প্রত্যেক মোহরারকে মোহরার সমিতির নিবন্ধিত সদস্য হতে হবে।

২। মোহরার সমিতির সদস্যদের আইনজীবী সমিতির নির্ধারণকৃত পোশাক পরে আদালত চত্ত্বরে প্রবেশের মাধ্যমে কর্মকান্ড পরিচালনা করতে হবে।

৩। কোন মোহরার সুনির্দিষ্ট আইনজীবী ব্যতীত ব্যাক্তিগত কোনো চেম্বার, সেরেস্তা, অফিস ব্যবহার করতে পারবেনা এবং মামলা গ্রহণ বা পরিচালনার দায়িত্ব নিতে পারবেনা।

৪। মোহরারদের নির্ধারিত শার্ট হবে নীল রঙ এর এবং প্যান্ট হবে কালো রং এর

৫। কোন মোহরার যেকোনো সময় এমনকি শীত কালের কালো কোর্ট ব্যবহার করতে পারবে না।

৬। বিচারপ্রার্থী জনগণের সচেতনতার জন্য পোষ্টার ফেস্টুন বানানো হবে প্রচারের জন্য।

৭। যেকোনো সময় ভ্রাম্যমাণ আদালতের সহযোগিতায় আদালত চত্ত্বরে অভিযান পরিচালনা করা হবে, অনিয়ম পাওয়া গেলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে তাতক্ষণাত।

৮। কোনো মোহরার আইনজীবী সমিতি কতৃক নির্ধারিত সিদ্ধান্ত অমান্য করলে অথবা বিচারপ্রার্থী জনগণের অর্থ তছরুপ করলে আইনজীবী সমিতি বরাবর সুনির্দিষ্ট অভিযোগে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

আইনজীবী সমিতির যেকোনো টাউট, বাটপার, দালাল কতৃক সমস্যা সৃষ্ট কিংবা কমিটি সংক্রান্ত কোনো তথ্য ও অনুসন্ধান বিষয়ে যোগাযোগ:

অ্যাডভোকেট মনোয়ার হোসেন মুকুল
সহসভাপতি, জেলা আইনজীবী সমিতি, কুষ্টিয়া।
আহবায়ক, মোহরার যাচাই বাছাই ও টাউট, বাটপার, দালাল নির্মূল সাব কমিটি