এম. আর. পলল,আজ ২৫ শে এপ্রিল, ২০২৩ ইং গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়ের প্রশাসন ২ অধিশাখার এক অফিস বিজ্ঞপ্তিতে কুষ্টিয়ার কৃতিসন্তান বিশিষ্ট তথ্যপ্রযুক্তিবিদ ও আওয়ামিলীগ নেতা সুফি ফারুক ইবনে আবুবকরকে বাংলাদেশ পেট্রোলিয়াম এক্সপ্লোরেশন এন্ড প্রোডাকশন কোম্পানী লিমিটেডের পরিচালক পদে নিয়োগ প্রদান করা হয়।

উল্লেখ্য যে সুফি ফারুক ইবনে আবুবকর বর্তমানে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি উপ কমিটির সদস্য, সাইবার মনিটরিং সেলের সভাপতি, কুষ্টিয়া জেলা আওয়ামীলীগের সাবেক বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক এবং বর্তমান কমিটির কার্যনির্বাহী সদস্য, বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের পরিচালনা পর্ষদ সদস্য, গুরুকুল বাংলাদেশের প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান নির্বাহী হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

সুফি ফারুকের বাড়ি কুষ্টিয়া জেলার, কুমারখালী উপজেলার, বাগুলাট ইউনিয়ন এর বাঁশগ্রামে। কুষ্টিয়া জিলা স্কুলের ১৯৯৬ সালে কৃতিত্ত্বের সাথে মাধ্যমিক ও কুষ্টিয়া সরকারি কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক পাশ করেন। পরবর্তীতে গ্রাজুয়েশন শেষে ব্রাক বিশ্ববিদ্যালয়ে স্নাতকোত্তর শেষ করেন।
ছাত্র জীবন থেকেই বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি এবং স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনে কার্যক্রমে জড়িত ছিলেন। ১৯৯৯ সালে প্রযুক্তিতে কুষ্টিয়ার যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন। এছাড়াও ছাত্রজীবনে সাংস্কৃতিক কর্মকান্ড ও কুষ্টিয়া জেলা ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত ছিলেন।

পরবর্তীতে তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ে বিশেষ দক্ষতা ও অভিজ্ঞতার দরুণ রবি অজিয়টা লিমিটেডের প্রধান প্রযুক্তি কর্মকর্তা হিসেবে নিয়োগ পান। তথ্য প্রযুক্তির উপর আইএসপি সেটাপ ম্যানুয়াল বই লেখেন, বর্তমানে বিভিন্ন তথ্য প্রযুক্তি বিশেষায়িত প্রতিষ্ঠানে বইটি পাঠদানে সহায়তার জন্য ব্যবহৃত হয়।

গুরুকুল বাংলাদেশ নিয়ে বর্তমানে কাজ করছেন শিক্ষা বিষয়ক অনলাইন প্লাটফর্মে। গুরুকুল নার্সিং, ইঞ্জিনিয়ারিং, ম্যাটস ইন্সটিটিউড এবং ভার্চুয়াল স্কুলের প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে দক্ষ, শিক্ষিত, মনবিক ও রুচিশীল প্রজন্ম গড়ে তোলাই বিশিষ্ট তথ্য প্রযুক্তিবিদ ও আওয়ামীলীগ নেতা সুফি ফারুক ইবনে আবুবকর এর লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য।