শিরোনামঃ
আন্তর্জাতিক পুরষ্কার প্রাপ্ত সংগঠক অ্যাড পলল ঘাতক দালাল নির্মুল কমিটি কুষ্টিয়ার সাংগঠনিক সম্পাদক নির্বাচিত কুষ্টিয়ার সেই আলোচিত কর্নেল হত্যা তিন বন্ধুকে যাবজ্জীবন ইবিতে ইনট্রোডিউসিং প্রিন্টমেকিং শীর্ষক কর্মশালা উদ্বোধন কুষ্টিয়ায় চ্যাম্পিয়নের বাড়িতে খাবার নেই, বাজার নিয়ে ছুটে গেলেন ইউএনও কুমারখালীতে সুতার কারখানায় আগুনে কোটি টাকার ক্ষতিসাধন কুষ্টিয়ায় কিশোর হত্যা মামলার সাজাপ্রাপ্ত আসামি র‍্যাবের হাতে গ্রেফতার কোরআনের পাখিদের নিয়ে শীতের পিঠা উৎসব পালন করলো ‘ভালোবাসার কুষ্টিয়া’ গ্রুপ কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে পাট বোঝাই ট্রাকে আগুন কুমারখালীতে সাংবাদিককে বিয়ে করায় উদ্যোক্তার চাকুরি খেলেন চেয়ারম্যান পাবনায় চাঞ্চল্যকর দস্যুতা ও ছিনতাইয়ের ঘটনা শিক্ষার্থী এবং অস্ত্রধারী দুই সন্ত্রাসী গ্রেফতার

ইবিতে শিবির সন্দেহে দুই শিক্ষার্থীকে ছাত্রলীগের মারধর

ইবি প্রতিনিধিঃ
  • আপডেটের সময়। সোমবার, ৫ সেপ্টেম্বর, ২০২২
  • ১৩৭ টাইম ভিউ

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে (ইবি) শিবির সন্দেহে দুই শিক্ষার্থীকে মারধর করেছে সাধারণ শিক্ষার্থী ও ছাত্রলীগের কর্মীরা। সোমবার (৫ সেপ্টেম্বর) কলা অনুষদের ডিন ভবনের সামনে এ ঘটনা ঘটে। মারধর শুরু হলে শিক্ষার্থীদের একজনে বিশ্ববিদ্যালয়ের বটতলা অভিমুখে পালিয়ে যায় অন্যজনকে মারতে মারতে শিক্ষক শিক্ষার্থী সংস্কৃতি সেন্টার (টিএসসিসি) সামনে গিয়ে মারধর থামে। তবে শিবির সন্দেহ মার খাওয়া শিক্ষার্থীদের পরিচয় অজানা।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, বেলা দেড়টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের অনুষদ ভবনের ডিন অফিসের সামনে প্রায় অর্ধশতাধিক ছাত্রলীগ কর্মীরা অবস্থান নেয়। এসময় সেখানে অবস্থান করা দুই শিক্ষার্থীকে নানা প্রশ্ন করা হয়। এ পর্যায়ে শিবির সন্দেহে তাদের উভয়ে মারধর করা হয়েছে।

এ সময় ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা শিবির ধর জবাই করা সহ বিভিন্ন শ্লোগান দিচ্ছিল। ছাত্রলীগ নেতারা তাদের মারধরের সময় বলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের অস্ত্র নিয়ে সশস্ত্র অবস্থান করছিল শিবির এ ধারণা করে ছাত্রলীগ নেতা করা তাদের মারধর করেছে। ডিন অফিসের সামনে থেকে তাদের তাড়া করতে করতে আল-কোরআন বিভাগ, অনুষদ ভবন, বটতল ও প্রশাসন ভবনে দৌড়ে পালিয়েছে শিবির এ সন্দেহে খুঁজতে ছাত্রলীগ অভিযান করে থাকে।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নাসিম আহমেদ জয় বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রশিবিরের পদধারী নেতাকর্মী নৈরাজ্য সৃষ্টির লক্ষ্যে ঘোরাফেরা করছিল। সে খবর ছাত্রলীগের কর্মীরা ও সাধারণ শিক্ষার্থী জানতে পেরে তাদের চড় থাপ্পড় মেরেছে বলে আমি জেনেছি। বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের নৈরাজ্য বিরোধী সিরিজ মিছিল মিটিং চলাকালীন তারা অস্ত্র নিয়ে সশস্ত্র অবস্থান করেছে।

তিনি আরো বলেন, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের মাটিতে কোন ছাত্রশিবির থাকতে পারবে না। আমাদের কাছে পদধারীদের তথ্য আছে। ছাত্রলীগ ও সাধারণ শিক্ষার্থীরা যেখানে শিবির পাবে সেখানেই তাদের প্রতিহত করবে বলে জানান তিনি।

আপনার সামাজিক মিডিয়া এই পোস্ট শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর